আপনার একটি পাউন্ড বদলে দিতে পারে একটি জীবন, বাঁচাতে পারে একটি জীবন, এমনকি  একটি হাসপাতালও তৈরি করতে পারে l গরীব রুগীদের চিকিৎসা সেবায়  কমপক্ষে এক পাউন্ডের মাসিক অনুদান প্রদান করে এ মহৎ কাজে অবদান রাখুন এবং ওয়ান পাউন্ড জেনারেল হাসপাতাল বিশ্বনাথ গঠনে অংশ গ্রহণ  করুন,যা থেকে উপকৃত হবেন পুরো সিলেটের রুগীরা’   ওয়ান পাউন্ড হাসপাতাল একটি ব্রিটিশ দাতব্য সংস্থার (১১৬২১৫০ ) এক মহতী উদ্যোগ l
আমাদের সম্পর্কে

ওয়ান পাউন্ড হসপিটাল

ওয়ান পাউন্ড হসপিটাল একটি ব্রিটিশ দাতব্য সংস্থা, যা ইংল্যান্ড এবং ওয়েলস চ্যারিটি কমিশন কর্তৃক  নিবন্ধিত এবং নিবন্ধন নম্বর ১১৬২১৫০। দাতব্য সংস্থাটির  মূল লক্ষ্য বাংলাদেশের দরিদ্রতম জনগণের জন্য  প্রয়োজনীয় স্বাস্থ্যসেবা প্রদান করা। এই সেবাসমূহ সম্পাদনের জন্য, এই দাতব্য সংস্থা সিলেট  জেলার বিশ্বনাথে একটি ব্রিটিশ স্ট্যান্ডার্ড ৫০ শয্যা বিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতাল তৈরির উদ্যোগ গ্রহণ করেছে । সিলেট বাংলাদেশের উত্তরপূর্বাঞ্চলের একটি বিভাগীয় শহর, যেখানে কোটি লোকের বসবাস যারা সরাসরি উপকৃত হবেন অনন্তকাল এই প্রতিষ্ঠানের সেবা  থেকে।
আমরা কি করি?

স্বাস্থ্যসেবা, দারিদ্র বিমোচন, প্রাকৃতিক দুর্যোগ ,
দুর্বল ও এতিমদের সহায়তায় আমাদের প্রচেষ্টা

১.

বাংলাদেশের দরিদ্রতম জনগুষ্টির জন্য প্রয়োজনীয় স্বাস্থ্যসেবা প্রদান

ওয়ান পাউন্ড হসপিটাল একটা ব্রিটিশ চ্যারিটি সংস্থা এবং এর মহতী উদ্যোগসমূহ বাস্তবায়নে সমাজের বড় মনের বিত্তবানদের সহযোগীতা আর্থিক দান খুবই জ্বরুরি এবং যা ছাড়া এই হসপিটালের বাস্তবায়নও অসম্ভব । এই হসপিটালের মাধ্যমে এই সংস্থা বাংলাদেশের গরীব অসহায় রুগীদের বিনামূল্যে বা সাশ্রয়ী মূল্যে চিকিৎসা সেবা প্রদান করা l সচ্ছল ধনী রুগীরা এর সেবা ক্রয় করতে  পারবেন তবে থেকে অর্জিত মুনাফা এবং আপনাদের দান হবে সংস্থার চালিকা শক্তি 

প্রথমে বহিঃবিভাগ চিকিৎসা সেবা এবং পর্যায়ক্রমে ডায়াগনস্টিক, একসিডেন্ট এন্ড ইমার্জেন্সি এবং ইনডোর সার্ভিস চালুর পরিকল্পনা রয়েছে I তবে মা শিশু সেবা এবং এলার্জি চিকিৎসা অগ্রাধীকার ভিত্তিতে বাস্তবায়ন করা হবে ।

২.

এতিম অসহায় এবং প্রবীণদের জন্য 'প্রকল্প প্রশ্বাস'

এতিম অসহায় ও দুর্বল বয়স্কদের জন্যে যথাক্রমে অনাথ কেন্দ্র এবং কেয়ার হোম প্রতিষ্ঠা করে থাকা খাওয়া চিকিৎসা মুক্ত বাতাস গ্রহণের ব্যবস্থা করাI আপনাদের দান ও জাকাতের টাকা দিয়েই এই প্রজেক্ট চলবেI পাশাপাশি বিত্তশালীদের জন্যে  আলাদা কেয়ার হোম প্রতিষ্টা করা হবে এবং তাদের থেকে অর্জিত টাকাও এই প্রজেক্ট চলতে সহযোগিতা করবে I  অনাথ ও অসহায় প্রবীণরা একেবারে ফ্রি বা স্বাশ্রয়ী মুল্ল্যে এ সেবা গ্রহণ করতে পারেন I আর ভবনের নামকরণ করা হবে ‘স্বর্গীয় প্রশ্বাস’ 

আল্লাহ পবিত্র কুরআনে বলেছেন:

‘নিশ্চয় সদাকা হচ্ছে ফকীর ও মিসকীনদের জন্য এবং এতে নিয়োজিত কর্মচারীদের জন্য, আর যাদের অন্তর আকৃষ্ট করতে হয় তাদের জন্য;  এবং দাসত্বকারীদের [মুক্ত] দান করা হয়। , এবং ঋণগ্রস্থ, এবং আল্লাহর পথে এবং পথিকের জন্য। [এটি] আল্লাহর পক্ষ থেকে একটি বাধ্যবাধকতা। আল্লাহ সর্বজ্ঞ, প্রজ্ঞাময়। ” – (৯:৬০)

আপনার জাকাতের টাকা অসহায়দের মুক্ত নিশ্বাস প্রশ্বাসের গ্যারান্টী হতে পারে I সমাজের দানশীল যে কেউ বা কয়েকজন মিলে এই ভবনটি প্রতিষ্ঠা করতে পারেন তা হতে পারে নিজের বা আপনজনের স্বরণে, নাম ঠিকানা লেখা থাকবে অনন্তকাল ভবনের ওয়ালে বিস্তারিত জন্যে যোগাযোগ করুন info@onepoundhospital.org.uk

৩.

চিকিৎসা ব্যয়ে সহযোগিতা করে দারিদ্র্য বিমোচন

বাংলাদেশের গরীবদের জন্যে  চিকিৎসা ব্যায় সংকুলান প্রায় অসম্ভব আর মধ্যবিত্তদের জন্যে রীতিমত এক চেলেঞ্জ। ব্যায় সামলাতে কেউ কেউ জমিজমা এবং জমানো টাকা খরচ করে দরিদ্র হয়ে যাচ্ছেন । নির্ভরযোগ্য পরিসংখ্যানে দেখা যায় প্রতি বছর বায়ান্ন লক্ষ চৌত্রিশ হাজার লোক চিকিৎসা ব্যায় সামলাতে অতি দরিদ্র হয়ে যাচ্ছেন, (তথ্যসূত্র: হেলথ  এসডিজি বাংলাদেশ প্রোফাইল  ২০১৮)। এই সংস্থা অতি দরিদ্রদের বিনা মূল্যে এবং অন্যদের  মূল্যে   চিকিৎসা সেবা প্রদান করে দারিদ্রে বিমোচনে সহায়তা করবে।

একজন পেট্রন বা একজন গর্বিত ফাউন্ডার মেম্বার হউন

আপনার দান বাঁচতে পারে একটি জীবন আর আপনি থাকবেন অনন্তকাল হসপিটালের ইতিহাসে অমর

সংবাদ

২১ জানুয়ারী ২০১৭

ইংলেন্ডের পোর্টসমাউথের লর্ড মেয়র ব্যাঙ্কুইটিং হলে আনুষ্ঠানিক উদ্ভোধন করলেন লর্ড মেয়র অব পোর্টসমাউথ কাউন্সিলর ডেভিড ফুলার

১০ মার্চ ২০১৭

বাংলাদেশে ফ্রি ফ্রাইডে ক্লিনিকের মধ্যদিয়ে শুভ যাত্রা সূচনা করলেন মন্ত্রিপরিষদ সচিব মোহাম্মদ মঈন উদ্দিন

২৭ ডিসেম্বর ২০১৯

সেক্রেটারি জেনারেল ও ফাইনাল ডিরেক্টর এম আয়াস মিয়া সংস্থার পরিকল্পনা ও কার্যক্রম বাংলাদেশে প্রেস ব্রিফিং-এর মাধ্যমে তুলে ধরে সর্বমহলের সহযোগিতা  কামনা করেন

১১ মে ২০১৮

প্রতিবন্ধী সুহেল মিয়াকে হুইল চেয়ার সংস্থার তরফ থেকে দিলেন,  হিউম্যান রাইটস এন্ডপিস ফর বাংলাদেশ এর চেয়ারম্যান, মাসিক দর্পন সম্পাদক ও বিশ্বনাথ প্রেসক্লাবের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি মো. রহমত আলী।